শেবাচিমে করোনা আক্রান্ত ও উপসর্গ নিয়ে দুইজনের মৃত্যু

বরিশাল শেবাচিম হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত এক রোগী মারা গেছেন। পাশাপাশি উপসর্গ নিয়ে আরও এক রোগীর মৃত্যু হয়েছে। শুক্রবার ভোরে ও সকালে হাসপাতালের করোনা ওয়ার্ডে তাদের মৃত্যু হয়। এছাড়া গত ১ জুন বিকেলে একই হাসপাতালের করোনা ওয়ার্ডে মৃত্যু এক রোগীর নমুনা পরীক্ষা করে রিপোর্টে করোনা পজেটিভ শনাক্ত হয়েছে।

জেলা প্রশাসনের মিডিয়া সেল সূত্রে জানা গেছে, করোনায় আক্রান্ত হয়ে আইসিইউতে শুক্রবার ভোরে মারা যাওয়া দেলোয়ার হোসেন (৪৫) ঝালকাঠির নলছিটি উপজেলার তিমিরকাঠি গ্রামের বাসিন্দা। উপর্সগ নিয়ে মারা যাওয়া আব্দুল খালেক খান বাবুগঞ্জ উপজেলার চাঁদপাশা গ্রামের বাসিন্দা। মৃত্যুর পর তার শরীর থেকে নমুনা সংগ্রহ করে ল্যাবে প্রেরণ করা হয়েছে।

অপরদিকে গত ১ জুন বিকেলে করোনা ওয়ার্ডে মৃত্যুবরণ করা ভোলার চরফ্যাশন উপজেলার নীলকমল গ্রামের আমির হোসেনের (৬৫) নমুনা পরীক্ষার রিপোর্ট পজেটিভ এসেছে।

মিডিয়া সেল সূত্রে আরও জানা গেছে, জেলায় নতুন করে একজন চিকিৎসক, তিনজন নার্স এবং ১১ জন পুলিশ ও তাদের পরিবারের দুই সদস্যসহ বিভিন্ন উপজেলার মোট ৬৪ জনের শরীরে করোনা ভাইরাস শনাক্ত করা হয়েছে। যা একদিনে বরিশালে সর্বোচ্চ শনাক্তের রেকর্ড।

ইত্তেফাক/কেকে

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

%d bloggers like this: