রাসিকের হাজার কোটি টাকার বাজেট ঘোষণা

রাজশাহী সিটি করপোরেশনের (রাসিক) ২০২০-২১ অর্থবছরে প্রায় হাজার কোটি টাকার বাজেট ঘোষণা করা হয়েছে। শনিবার দুপুরে নগর অ্যানেক্স ভবনের সভাকক্ষে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে রাসিক মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন এই বাজেট ঘোষণা করেন। প্রস্তাবিত বাজেটে আয় ও ব্যয়ের হিসাব সমান অর্থাৎ সুষম হলেও প্রস্তাবিত বাজেট গত অর্থবছরের চেয়ে আকারে প্রায় দ্বিগুণ।

প্রসঙ্গত, ২০১৯-২০ অর্থবছরের প্রস্তাবিত বাজেট ছিল ৫৪৭ কোটি ১৮ লাখ ১২ হাজার টাকার। যা সংশোধিত হয়ে ৪৭৩ কোটি ৪৯ লাখ ৫৪ হাজার টাকায় দাঁড়িয়েছে। এবার ২০২০-২১ অর্থবছরে ৯৯৬ কোটি ৭৯ লাখ ৩ হাজার ৩২৯ টাকা ৯২ পয়সার প্রস্তাবিত বাজেট ঘোষণা করা হয়েছে।

সংবাদ সম্মেলনে মেয়র খায়রুজ্জামান লিটন বলেন, সিটি করপোরেশন পরিচালনা ব্যয় যত দ্রুত বৃদ্ধি পাচ্ছে সে তুলনায় আয় বাড়ছে না। এ জন্য এবারের বাজেটে অপ্রচলিত খাতে আয় বৃদ্ধি ও প্রচলিত আয়ের খাতগুলোতে তথ্য-প্রযুক্তির অধিক ব্যবহারের মাধ্যমে শক্তিশালী করার পদক্ষেপ গ্রহণ করা হয়েছে।

আরও পড়ুন: চলনবিলে মা ও পোনা মাছ নিধন রোধে উদ্যোগ নেই, দেদারে শিকার

করোনাকালে এতো বড় বাজেট বাস্তবায়ন কীভাবে সম্ভব হবে? এমন প্রশ্নের জবাবে মেয়র বলেন, স্বপ্নচূড়া ও দারুচিনি মার্কেটে সিটি করপোরেশনের অংশ বিক্রি করে করে একটি বড় অংকের রাজস্ব আসবে। প্রকল্প খাত থেকে ৪০ কোটি টাকা ব্যয়ে শালবাগান মার্কেট তৈরি হলে সেখান থেকেও রাজস্ব আসবে। সরকারি-বেসরকারি সহায়তা থাকবে। সালভেজ ম্যাটারিয়াল ও এ্যাসফল্টপ্ল্যান্টের মাধ্যমে আয় বৃদ্ধি করা হবে। ফলে বাজেট বাস্তবায়ন সম্ভব হবে।

মেয়র বলেন, গতানুগতিক আয়ের খাত থেকে বের হয়ে গ্যাসভিত্তিক সিএনজি স্টেশন, রাসিকের অধীন বেসরকারি বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় স্থাপন, সিটি হাসপাতালকে মহিলা মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালে উন্নীতকরণ, বেসরকারি নার্সিং ইনস্টিটিউট, কারিগরি প্রশিক্ষণ ইনস্টিটিউট স্থাপনসহ নানা পরিকল্পনা রয়েছে। সিটি করপোরেশনের আয়তন বাড়ানোরও প্রস্তাব করা হয়েছে। জনগণের দোরগোড়ায় সেবা পৌঁছে দিতে রাসিককে চারটি জোনে বিভক্ত করে জোনাল কার্যক্রমের মাধ্যমে কার্যক্রম পরিচালনা করা হবে। এটি সরকার ইতোমধ্যে অনুমোদন করেছে।

মেয়র লিটন বলেন, এবারের বাজেটে অবকাঠামো উন্নয়ন, স্বাস্থ্য, পরিবেশ, শিল্পায়ন, কর্মসংস্থান সৃষ্টি, শিক্ষা, প্রান্তিক জনগোষ্ঠীর জীবনমান উন্নয়ন, ক্রীড়া, সাংস্কৃতিক ও বিনোদনের ওপর গুরুত্বরোপ করা হয়েছে। নগরীর কিশোর ও যুবসমাজকে মাদকের হাত থেকে রক্ষায় খেলাধুলা খাতে অর্থ বরাদ্দের প্রস্তাব করা হয়েছে। এছাড়া প্রতিবন্ধীদের সহায়তায় বাজেটে অর্থ বরাদ্দ রয়েছে। বস্তি উন্নয়নের ও জলবায়ুর বিরূপ প্রভাব মোকাবিলার জন্য প্রকল্প হাতে নেয়া হয়েছে। স্বাস্থ্যখাতে যে বরাদ্দ রাখা হয়েছে করোনাকালে প্রয়োজনে তা দ্বিগুণ করা যাবে।

সংবাদ সম্মেলনে রাসিকের প্যানেল মেয়র-২ রজব আলী, ২১ নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সিলর ও সাবেক দায়িত্বপ্রাপ্ত মেয়র নিযাম-উল-আযীম, প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা ড. এবিএম শরীফ উদ্দিন, সচিব আবু হায়াত মো. রহমাতুল্লাহ, প্রধান রাজস্ব কর্মকর্তা শাহানা আখতার জাহান প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

ইত্তেফাক/এসি

সূত্রঃ দৈনিক ইত্তেফাক

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

%d bloggers like this: