আমরা কখনোই বিরোধীদের ওপর চাপ সৃষ্টি করিনি : আনোয়ার হোসেন মঞ্জু

জাতীয় পার্টি-জেপির চেয়ারম্যান আনোয়ার হোসেন মঞ্জু এমপি বলেছেন, এলাকায় ৩৬ বছরের রাজনৈতিক জীবনে কখনোই অন্যের ওপর আমাদের মত চাপিয়ে দেইনি। এ সময় আমাদের প্রচেষ্টা ছিল সকল মতকে এক করে এলাকার উন্নয়ন প্রক্রিয়াকে এগিয়ে নিয়ে যাওয়া। সেক্ষেত্রে আমাদের সফলতা সকলের প্রশংসা পেয়েছে। স্বাধীনতা পরবর্তী রাজনীতি পরাধীন আমলের রাজনীতি থেকে যে, ভিন্নতর তা উপলব্ধি করে মানুষকে আল্লাহর রহমতে ঐক্যবদ্ধ করতে সচেষ্ট ছিলাম।

তিনি গতকাল বৃহস্পতিবার পিরোজপুর জেলার ভাণ্ডারিয়া উপজেলা সদরে জাতীয় পার্টি-জেপি আয়োজিত বৈশ্বিক মহামারি করোনা ভাইরাস থেকে পরিত্রাণে দোয়া ও মোনাজাতে অংশগ্রহণকালে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ কথা বলেন।

এ সময় তিনি আরো বলেন, পাকিস্তান আমলে বঙ্গবন্ধুর নেতৃত্বে রাজপথে আন্দোলন-সংগ্রাম করে দেশের স্বাধীনতা অর্জনের জন্য আমরা জেল-জুলুমের শিকার হয়েছি। দেশ স্বাধীন হওয়ার পর সেই প্রেক্ষাপটের পরিবর্তন ঘটেছে। স্বাধীনতা পরবর্তী রাজনীতির মূল উদ্দেশ্য মানুষকে ঐক্যবদ্ধ করে তার ভাগ্য উন্নয়নকে ত্বরান্বিত করা। সেভাবেই গত ৩৬ বছর আমি নিজেকে রাজনীতিতে ব্যাপৃত রাখার চেষ্টা করেছি। পৃথিবীতে কোথাও উদাহরণ নেই ৩৬ বছর সংসদে অবস্থান, ১৮ বছর মন্ত্রিত্ব করা তথা লাগাতারভাবে স্বাধীনতার সুফলকে মানুষের মধ্যে পৌঁছে দেওয়ার প্রচেষ্টারত থাকা। এরকম ঘটনা বিশ্বে বিরল বলে মানুষ আমাদের মন্ত্রিত্বকালীন কাজের প্রশংসা করেন।

আনোয়ার হোসেন মঞ্জু বলেন, আমরা ঐক্যবদ্ধ ছিলাম বলে ভাণ্ডারিয়াসহ দক্ষিণাঞ্চলের মানুষের কল্যাণে দীর্ঘস্থায়ী উন্নয়নসাধনে সক্ষম হয়েছি। সফলতা আন্তর্জাতিকভাবে সমাদৃত হওয়ায় মার্কিন রাষ্ট্রদূত বা ভারতীয় হাইকমিশনারসহ বিদেশি কূটনীতিকরা ভাণ্ডারিয়া এসেছেন এ অর্জনের বাস্তবতা অনুধাবনে। এখানে যে ঐক্যের রাজনীতির প্রতিফলন ঘটেছে তা দেখতে এসে তত্কালীন স্বাস্থ্যমন্ত্রী সদ্য প্রয়াত জননেতা মোহাম্মদ নাসিম ভাণ্ডারিয়ায় বসে পিরোজপুর জেলা সদরে ২৫০ শয্যার হাসপাতাল স্থাপনের ঘোষণা দেন। স্থানীয় সরকার মন্ত্রী থাকাকালে খন্দকার মোশাররফ হোসেন এখানে এসে গ্রামীণ জনপদের উন্নয়ন প্রকল্প, বিদ্যুৎ প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ ভাণ্ডারিয়া সাবস্টেশন ও ট্রান্সমিশন লাইন স্থাপনের যে ঘোষণা দিয়েছিলেন তা আজ বাস্তবায়িত। এ সাবস্টেশন থেকে এ অঞ্চলের চারটি উপজেলায় বিদ্যুৎ সরবরাহ করা হচ্ছে। এ উন্নয়নকাজের ধারাবাহিকতা আমরা অব্যাহত রাখতে সক্ষম হচ্ছি। এলাকার মানুষের মঙ্গলসাধনে আল্লাহর ইচ্ছায় এই উন্নয়ন প্রচেষ্টা অব্যাহত থাকবে। গত এক বছরে এ এলাকায় আরো ৪৫টি কালভার্ট ব্রিজ নির্মিত হয়েছে এবং আরো ৫৫টি নির্মাণের পথে।

পিরোজপুরের ভাণ্ডারিয়া উপজেলা সদরে গতকাল জাতীয় পার্টি-জেপি আয়োজিত বৈশ্বিক মহামারি করোনা ভাইরাস থেকে পরিত্রাণের জন্য মোনাজাত অনুষ্ঠিত হয়।

দোয়া-মোনাজাতে অংশ নিতে সাবেক সংসদ সদস্য ও ইত্তেফাকের সম্পাদক তাসমিমা হোসেন, ফরিদপুর-৪ আসনের সংসদ সদস্য মজিবুর রহমান চৌধুরী (নিক্সন) বিশেষ অতিথি হিসেবে ঢাকা থেকে ভাণ্ডারিয়ায় আসেন। এছাড়া আনোয়ার হোসেন মঞ্জুর দৌহিত্র রাইয়ান হোসেন তাদের সফরসঙ্গী ছিলেন।

ভাণ্ডারিয়া বাসস্ট্যান্ডে দলীয় কার্যালয়ে আয়োজিত এ অনুষ্ঠানে জাতীয় পার্টি-জেপির উপজেলা আহ্বায়ক ও সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান মনিরুল হক মনি জমাদ্দারের সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন জেপির ভাণ্ডারিয়া উপজেলা শাখার সিনিয়র যুগ্ম আহ্বায়ক ও সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান মাহিবুল হোসেন মাহিম এবং সদস্য সচিব ও সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান আতিকুল ইসলাম তালুকদার উজ্জল।

এ সময় অন্যান্যের মধ্যে মোনাজাতে অংশ নেন জেপির যুগ্ম আহ্বায়ক ও পৌর কাউন্সিলর গোলাম সরওয়ার জমাদ্দার, আওয়ামী লীগের উপজেলা সভাপতি ফাইজুর রশিদ খসরু, সাধারণ সম্পাদক ও উপজেলা চেয়ারম্যান মিরাজুল ইসলাম মিরাজ, জেপির মহিলা পার্টির উপজেলা সভানেত্রী ও উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান আসমা আখতার, ইন্দুরকানী উপজেলা জেপির সদস্য সচিব মো. শাহিন হাওলাদার, নদমুলা ইউপির চেয়ারম্যান সফিকুল কবির বাবুল তালুকদার, ভিটাবাড়িয়া ইউপি চেয়ারম্যান খান এনামুল করিম পান্না, ইকরি ইউপি চেয়ারম্যান হুমায়ুন কবির, পৌর জেপির আহ্বায়ক জামাল উদ্দিন মিয়া স্বপন, সদস্য সচিব আহসান কিবরিয়া ফরিদ মল্লিক, উপজেলা যুব সংহতির আহ্বায়ক ও পিরোজপুর জেলা পরিষদের সদস্য রেজাউল হক রেজভি জমাদ্দার, সদস্য সচিব মামুনুর রশিদ সরদার, স্বেচ্ছাসেবক পার্টির আহ্বায়ক মো. মনির সরদার, উপজেলা ছাত্র সমাজের আহ্বায়ক রাহাত জমাদ্দার, সদস্য সচিব অন্তু সরদার, পৌর ছাত্র সমাজের আহ্বায়ক মেহেদি হাসান রাজু, সদস্য সচিব মাহবুব শরিফ শুভ, শ্রমিক পার্টির সভাপতি মো. শাজাহান সরদার, সাধারণ সম্পাদক মো. শাজাহান হাওলাদার প্রমুখ।

এছাড়া স্থানীয় বিশিষ্ট ব্যক্তিদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, বিশিষ্ট মুক্তিযোদ্ধা খান এনায়েত করিম, ইকরির সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান হাবিবুর রহমান হারেস। এলাকার গণ্যমান্য ব্যক্তিরা দোয়া ও মোনাজাতে অংশ নেন। দোয়া ও মোনাজাত পরিচালনা করেন মাওলানা ফারুক হোসেন।

আনোয়ার হোসেন মঞ্জুর কাছ থেকে নতুন প্রজন্মের শিক্ষণীয় রয়েছে

তার সফরসঙ্গী অনুষ্ঠানের বিশেষ অতিথি ফরিদপুর-৪ আসনের জাতীয় সংসদ সদস্য মজিবুর রহমান চৌধুরী (নিক্সন) বলেন, আনোয়ার হোসেন মঞ্জু একটি প্রতিষ্ঠানের নাম। একজন রাজনীতিবিদ, মানুষের উন্নয়নে জীবনের সর্বোচ্চ সময় ব্যয় করেছেন। ভাণ্ডারিয়ার প্রেক্ষাপটে তিনি ঐক্যের অনন্য নজির স্থাপন করেছেন। এটা আমরা যারা নতুন রাজনীতিবিদ তাদের আনোয়ার হোসেন মঞ্জুকে অনুসরণ করা উচিত। নতুন প্রজন্মের কাছে তার কর্মকাণ্ড শিক্ষণীয় এবং অনুকরণীয়। আমরা তাকে অনুসরণ করে দেশকে আরো সামনের দিকে এগিয়ে নিতে পারব।

মজিবুর রহমান চৌধুরী (নিক্সন) আরো বলেন, বাংলাদেশের যোগাযোগ ব্যবস্থার উন্নয়নে আনোয়ার হোসেন মঞ্জুর অবদান চির স্মরণীয় হয়ে থাকবে। এলাকার মানুষের ভাগ্যোন্নয়নে তিনি যে দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছেন তা যদি সারা বাংলাদেশের প্রতিটি উপজেলায় করা যেত তাহলে বঙ্গবন্ধুর সোনার বাংলার স্বপ্ন আমরা পূরণ করতে পারতাম অতি দ্রুত। আমাদের নেত্রী প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বঙ্গবন্ধুর অসমাপ্ত কাজ সম্পন্ন করতে যে লাগাতার প্রচেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন তা বাস্তবায়ন করার জন্য সবাইকে ঐক্যবদ্ধ থাকতে হবে।

দোয়া ও মোনাজাতে মজিবুর রহমান চৌধুরীর (নিক্সন) সফর সঙ্গীদের মধ্যে অংশ নেন ভাঙ্গা উপজেলার সাবেক চেয়ারম্যান শাহাদাত্ হোসেন, সদরপুর উপজেলা চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক কাজী সফিকুর রহমান, ভাঙ্গা উপজেলা চেয়ারম্যান হাবিবুর রহমান, ভাঙ্গা উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ফাইজুর রহমান, কুমিল্লার তিতাস উপজেলা চেয়ারম্যান পারভেজ হোসেন সরকার, চরভদ্রাসন উপজেলা আওয়ামী লীগ নেতা আনোয়ার আলী মোল্লা প্রমুখ।

জেপি চেয়ারম্যান আনোয়ার হোসেন মঞ্জু এমপি গতকাল বৃহস্পতিবার বিকালে তার সফরসঙ্গী ফরিদপুর-৪ আসনের জাতীয় সংসদ সদস্য মজিবুর রহমান চৌধুরকে (নিক্সন) নিয়ে ঢাকা থেকে ভাণ্ডারিয়া আসার পথে ঝালকাঠির গাবখান সেতুতে পৌঁছলে ভাণ্ডারিয়াবাসীর পক্ষ থেকে তাদের ব্যাপক অভ্যর্থনা জানানো হয়।

ইত্তেফাক/জেডএইচ

সূত্রঃ দৈনিক ইত্তেফাক

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

%d bloggers like this: