হিলি সীমান্ত দিয়ে চামড়া পাচারের আশঙ্কায় সতর্ক বিজিবি

কোরবানির পশুর চামড়া ভারতে পাচারের আশঙ্কা থাকায় দিনাজপুরের হিলি সীমান্তে সর্বোচ্চ সতর্কতা জারি করা হয়েছে। বাংলাদেশের চেয়ে ভারতে চামড়ার মূল্য অনেক বেশি। একারণে ঈদের দিন থেকে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ-বিজিবি এই সতর্কতার মাধ্যমে পর্যবেক্ষণ শুরু করেছে। এছাড়া সীমান্তের বিভিন্ন পয়েন্টে অতিরিক্ত বিজিবি সদস্য মোতায়েন করা হয়েছে।

সীমান্তের বিভিন্ন সূত্রে জানাগেছে, চোরাকারবারীরা প্রতি বছর কোরবানির পশুর চামড়া ভারতে পাচারের চেষ্টা করে। কারণ ভারতে চামড়ার মূল্য তুলনামূলক অনেক বেশি। আর দেশে অন্যান্য বছরের চেয়ে এবছর চামড়ার মূল্য অনেক কম। ফলে হিলি চেকপোস্ট, হাড়িপুকুর, রায়ভাগ, মংলা, নন্দিপুর ও ঘাসুড়িয়া পয়েন্ট ছাড়াও বিরামপুর ও পাঁচবিবি সীমান্তের পয়েন্টগুলো দিয়ে ভারতে চামড়া পাচারের আশঙ্কা রয়েছে।

এদিকে জয়পুরহাট- ২০ বিজিবি ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লেফটেন্যান্ট কর্নেল মোহাম্মদ ফেরদৌস হাসান টিটো সাংবাদিকদের জানান, স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় ও বিজিবি হেড কোয়ার্টারের নির্দেশে হিলিসহ আশ-পাশের সীমান্তের চোরাইপথ দিয়ে কোরবানির পশুর চামড়া যাতে কোনোভাবে ভারতে পাচার হতে না পারে, সে ব্যাপারে কঠোর নিরাপত্তা ব্যবস্থা গড়ে তোলা হয়েছে।

তিনি আরও জানান, সীমান্তবর্তী যেসব স্থানে কোরবানির পশুর চামড়ার আড়ত আছে সেসব স্থানগুলোতে নজরে রাখতে বিজিবি ও গোয়েন্দা সদস্যদের নজরদারি বাড়ানো সহ পর্যবেক্ষণের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। প্রাথমিক অবস্থায় ঈদের দিন থেকে ১৫ দিন এবং প্রয়োজন হলে পরবর্তীতে আরও ১৫ দিন কোরবানির পশুর চামড়া পাচার রোধে সীমান্তে বিজিবির এ সতর্কতা অব্যাহত থাকবে।

ইত্তেফাক/এমআরএম

সূত্রঃ দৈনিক ইত্তেফাক

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

%d bloggers like this: