জেলে কাগজের ঠোঙা বানাতেন সঞ্জয় দত্ত, আয় করেন ৫০০ টাকা!

মুম্বাই, ১০ জানুয়ারি – বেআইনি অস্ত্র রাখার অভিযোগে কারাগারে ছিলেন বলিউডের জনপ্রিয় অভিনেতা সঞ্জয় দত্ত। জেলে সে সময় কাগজের ঠোঙা তৈরির কাজ দেওয়া হয় তাকে। এই কাজ করেই তিনি ৫০০ টাকা আয় করেন! সম্প্রতি এক টিভি শোতে নিজেই এই ঘটনা জানান বলিউডের ‘মুন্না ভাই’ সঞ্জয় দত্ত।

১৯৯৩ সালের এক মামলায় বেআইনি ভাবে নিজের কাছে অস্ত্র রাখার অভিযোগ ছিল সঞ্জয়ের বিরুদ্ধে। ২০০৭ সালে টাডা আদালত সেই অপরাধে তাকে কারাদণ্ড দেয়। সুপ্রিম কোর্ট সেই রায়ই বহাল রাখায় ২০১৩ থেকে ২০১৬ পর্যন্ত পুনের ইয়েরওয়াড়া জেলে কেটেছে অভিনেতার।

বন্দি জীবনেই সঞ্জয়কে কাগজের ঠোঙা তৈরির কাজ দেয় জেল কর্তৃপক্ষ। প্রত্যেক ঠোঙায় মিলত ২০ পয়সা। প্রতিদিন প্রায় ৫০ থেকে ১০০টি ঠোঙা তৈরি করতেন এক সময়ের নামিদামি অভিনেতা।

টিভির অনুষ্ঠানে সঞ্জয় অকপটে জানান, প্রায় সাড়ে তিন বছরের জেল-জীবনে ঠোঙা তৈরি করেই তিনি রোজগার করেছিলেন প্রায় ৫০০ টাকা। ২০১৬ সালে জেল থেকে ছাড়া পেয়ে সেই টাকা স্ত্রী মান্যতার হাতে তুলে দেন তিনি।

অভিনেতার নিজের কথায়, ‘পণ করেছিলাম, জেলের কঠিন দিনগুলো ইতিবাচক মন নিয়ে কাটাব। ওই পাঁচশো টাকার মূল্য আমার কাছে পাঁচ হাজার কোটি টাকার সমান!’

২০১৬ সালে নতুন করে ছবির দুনিয়ায় পা রাখেন বলিউডের ‘মুন্নাভাই’। কাজ করছেন বিভিন্ন ছবিতে। এ বছরও তার ঝুলিতে রয়েছে চারটি ছবি। সবকটিতেই পার্শ্বচরিত্রে অভিনয় করবেন এক সময়ের জনপ্রিয় নায়ক।

এম এস, ১০ জানুয়ারি

জেলে কাগজের ঠোঙা বানাতেন সঞ্জয় দত্ত, আয় করেন ৫০০ টাকা!

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

%d bloggers like this: