বিপণনের ভুল স্লোগানটাই আমাদের নৈতিকতা নষ্ট করেছে :আনজাম মাসুদ

কাজের ক্ষেত্রে সবসময়ই স্বতন্ত্র এক জীবন বেছে নিয়েছেন উপস্থাপক-নির্মাতা আনজাম মাসুদ। পরিচিতির ব্যপ্তি বেড়েছে তার প্রথম দিককার জনপ্রিয় ম্যাগাজিন অনুষ্ঠান ‘আজকাল’ থেকে। অনেকেই তাকে এখনও চেনেন আজকালের আনজাম মাসুদ হিসেবেই। সেই ধারাবাহিকতায় বিটিভির ম্যাগাজিন অনুষ্ঠানের পরে খানিক বিরতি নিয়ে এটিএন বাংলায় একটি ম্যাগাজিন অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করেছেন।

সর্বশেষ বিটিভিতে আবারও ফিরেছিলেন ‘পরিবর্তন’ নামের একটি ম্যাগাজিন অনুষ্ঠান নিয়ে। সেখানেও পেয়েছেন একই সফলতা। আনজাম মাসুদের কথায়, ‘কাজের প্রতি নিষ্ঠাই আমাকে আমার দর্শকেরা পুরস্কার দিয়েছে। তারাই আমার সবচেয়ে বড় বিচারক।’ উল্লেখ্য, সম্প্রতি বিনোদন সাংবাদিকদের অন্যতম সংগঠন সিজেএফবি থেকে সেরা উপস্থাপক হিসেবে পুরস্কৃত হয়েছেন আনজাম মাসুদ। ম্যাগাজিন অনুষ্ঠান উপস্থাপনা ও নির্মাণের পাশাপাশি বিজ্ঞাপন নির্মাণেও সুখ্যাতি আনজাম মাসুদের।

তবে আনজাম মাসুদ উত্তর নতুন প্রজন্মের তরুণেরা এই ধরনের অনুষ্ঠানে আর আগ্রহী হচ্ছেন না কেন এ প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ‘আমাদের দেশে এই কনসেপ্টকে সবচেয়ে সফলভাবে এনেছেন হানিফ সংকেত। তিনিই আমাদের কিংবদন্তী পথিকৃত। একই সাথে তার অনুষ্ঠানের উচ্চমানই আমাদের জন্য সবচেয়ে বড় অসহায়ত্ব। কারণ আমরা চাইলেও সেই মানের অনুষ্ঠান নির্মাণের অনুসঙ্গ হতে পারব না। ফলে তরুন একজন নির্মাতা প্রথমেই ধাক্কা খায়। কারণ তা অসম্ভব।

একটি ম্যাগাজিন অনুষ্ঠানের যে ব্যয় এবং যে অ্যারেঞ্জমেন্ট প্রয়োজন হয়, তা দিয়ে একটি সিনেমা নির্মান করা সম্ভব। কিন্তু সেই বাজেট তো কোনো নির্মাতা পান না। সেই স্পন্সরও নেই। আর এখনকার ডিজিটাল প্লাটফর্মে আমরা সবাই ভাইরাল হওয়া নিয়ে ব্যস্ত রয়েছি। তাই উত্কর্ষের কোনো মূল্য নাই। কীভাবে নজর কাড়ানো যাবে সেই প্রতিযোগিতা সবার ভেতরে। আর এর সাথে যোগ হয়েছে বিপণনের নতুন আরেক স্লোগান। আমাদের মগজে ঢুকিয়ে দেয়া হয়েছে যা, আমরা এখন প্রায়ই শুনি। সেটা হলো – ‘ব্যাড মার্কেটিংও এক ধরনের গুড মার্কেটিং’।

এই শ্লোগান আমাদের নষ্ট করেছে। বিপণনের ভুল শ্লোগানটাই আমাদের নৈতিকতা নষ্ট করেছে। এসমস্ত কারণে ডিজিটাল প্লাটফর্মে বড় কোনো আয়োজন আপনি দেখবেন না। আর সস্তা কিছু চটকদার আয়োজনেও যদি মিলিয়ন ভিউ পাওয়া যায়, কে যাবে এত পরিশ্রম করতে? কথাগুলো খুবই অপ্রিয়। কিন্তু দারুণ সত্য।’ নিদারুণ এই বাস্তবতার কারণেই আপাতত নতুনভাবে ম্যাগাজিন নির্মাণ থেকে বিরত রয়েছেন। তবে খুব জলদিই নতুন ঘোষণা দিয়ে কাজ শুরু করবেন বলে জানালেন। পাশাপাশি বিজ্ঞাপন নির্মাণ ও ইভেন্ট আয়োজক-উপস্থাপনার কাজ নিয়মিত করছেন তিনি। এছাড়াও উপস্থাপকদের একমাত্র সংগঠন পিপিবির সাধারণ সম্পাদক হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন আনজাম মাসুদ।

ইত্তেফাক/বিএএফ

সূত্রঃ দৈনিক ইত্তেফাক

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

%d bloggers like this: