শবনম বুবলীর নতুন অধ্যায়ের গল্প

ঢাকা, ২৬ ফেব্রুয়ারি – গত বছর চিত্রনায়িকা শবনম বুবলীকে নিয়ে উধাওয়ের গল্প তৈরি হয়। এই গল্পের সমাপ্তি টেনে চলতি বছরে নবরূপে ফিরলেন এই অভিনেত্রী। ১১ মাস আগে আড়ালে যাওয়ার সময় বুবলীকে যারা দেখেছেন, নতুন লুকের এই বুবলীকে এখন চিনতে কষ্ট হবে তাদের। আগের বুবলীর সঙ্গে এখনকার বুবলীর অনেকটাই অমিল। ওজন কমিয়ে নিজেকে আরও আকর্ষণীয় করে ফিরেছেন তিনি।

ছিলেন সংবাদ পাঠিকা। ২০১৬ সালে চিত্রনায়ক শাকিব খানের বিপরীতে ‘বসগিরি’ সিনেমার মাধ্যমে রুপালি পর্দায় যাত্রা শুরু করেন বুবলী। তারপর শাকিবের সঙ্গে অভিনয় করেন আরও ১০টি সিনেমায়। সর্বশেষ চিত্রনায়ক নিরবের সঙ্গে জুটিবদ্ধ হয়ে ‘ক্যাসিনো’ সিনেমায় অভিনয় করেন বুবলী। এই ছবির কাজ শেষ হতেই আড়ালে চলে যান এই অভিনেত্রী। ডাল-পালা মেলে নানা গুঞ্জন। এসব গুঞ্জনে পানি ঘোলা হতে থাকলেও এ বিষয়ে শুরু থেকেই নিশ্চুপ ছিলেন বুবলী। সব দেখেও কেন বুবলী কুলুপ এঁটেছেন- এমন প্রশ্নও ছিল চলচ্চিত্রপাড়ায়। চলচ্চিত্রের সঙ্গে জড়িত অনেকেই ধারণা করেছিলেন, ‘বুবলী হয়তো অপু বিশ্বাসের পথে হাঁটছেন। কিন্তু নিন্দুকের ধারণাকে ভুল প্রমাণ করে হাজির হলেন বুবলী। একাই।

২০২১ সালের প্রথম দিনে নিজের ভেরিফাইড ফেসবুকে নতুন লুকের ছবি প্রকাশ করে নিজেকে জানান দেন। ছবি প্রকাশের পর শুরু হয় নানা আলোচনা আর সমালোচনা। বিষয়টি নিয়ে বুবলীর সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, ‘আসলে সবকিছুর একটা প্রপার টাইম আছে। সময় হলে বিষয়গুলো জানাব, খুলে যাবে রহস্যের জট।’ নিজেকে নিয়ে তৈরি হওয়া গুঞ্জন প্রসঙ্গে বুবলী বলেন, ‘আমার প্রেম, বিয়ে, সংসার, সন্তান নিয়ে সব সময় নানা ধরনের কথা হয়েছে। আমার কাছে মনে হয়, ব্যক্তিগত বিষয় নিয়ে কথা না বলি। সময়ের সঙ্গে সব পরিস্কার হবে। তবে আমি বলতে চাই, অনেক গল্পের পেছনেও গল্প থাকে, যা সময়ের সঙ্গে সঙ্গে সবাই জানতে পারবেন। আর ব্যক্তিগত জীবন নিয়ে আজ পর্যন্ত কাউকে কিছু বলিনি।’

বুবলী যতবারই উধাও বা আড়াল হয়েছেন ততবারই ফিরেছেন চমক নিয়ে। দীর্ঘ রেসের প্রস্তুতি নিতেই তার আড়াল হওয়া। বুবলী জানালেন, ‘নিজেকে নবরূপে তৈরি করতেই তিনি দীর্ঘ বিরতী নিয়েছিলেন।’ টানা ১১ মাস পর বুবলী ঘোষণা দিলেন ‘চোখ’ নামের নতুন একটি ছবিতে কাজের। এই ছবিতে তার সহশিল্পী নিরব ও রোশান। তখনও বুবলী গণমাধ্যমকর্মীদের কারও সঙ্গে দেখা দেননি। এই ছবির ঘোষণার প্রায় মাসখানেক পর সবার সামনে এলেন। ঘোষনা দিলেন ‘লিডার :আমিই বাংলাদেশ’। এই ছবিতে বুবলীর নায়ক তার ক্যারিযারের আর্শিবাদ হয়ে আসা শাকিব খান। ঢাকাই ছবির এই শীর্ষ নায়কের বিপরীতে গত পাঁচ বছরে ১০টি সুপারহিট ছবিতে অভিনয় করেছেন। হয়েছেন দেশের প্রথমসারির চিত্রনায়িকা। দীর্ঘ বিরতির পর নতুন এই মিশনকে কেউ বাহবা দিলেন। কেউ আবার সমালোচনার নতুন পথ খুঁজলেন।

আরও পড়ুন : অনন্য মামুনের ‘কসাই’ মুক্তি পাবে প্রেক্ষাগৃহে

ক্যারিয়ারের শুরু থেকে আলোচনা আর সমালোচনার মাধ্যমে এভাবেই চলছে বুবলী অধ্যায়। বুবলীর সঙ্গে যখন কথা হয় তখন তিনি ব্যস্ত ‘চোখ’ ছবির কাজে। এত দিন নিজেকে আড়ালে রেখেছেন কেন? বুবলী বলেন, “আমার ব্যক্তিগত এবং বিশেষ কিছু কারণ তো অবশ্যই আছে। পারিবারিকভাবে চেয়েছি আলাদা থাকতে। ২০১৯ সালের শুরু থেকেই পরিকল্পনা করছিলাম, দেশের বাইরে যাওয়ার। কিন্তু নানা কারণে হয়নি। এরপর ২০২০ সালের শুরুতে যখন দেখলাম কাজের চাপ নেই। হাতে থাকা সব ছবির কাজও শেষ। তাই ভাবলাম, কিছু দিন ছুটি কাটানোর পাশাপাশি চলচ্চিত্র বিষয়ে একটি কোর্স করে আসি। পাশাপাশি ব্যক্তিগত কারণেও একটু দূরে ছিলাম। নিউইয়র্ক ফিল্ম একাডেমিতে ‘অ্যাক্টিং ফর ফিল্ম ওয়ার্কশপ’ নামে ১২ সপ্তাহের একটি কোর্স করানো হয়। সেই ভাবনা থেকেই আমেরিকায়। এত দিন সেখানেই ছিলাম। নিউইয়র্কের লং আইল্যান্ডে থেকেছি। আমেরিকা যাওয়া আর অভিনয়ের ওপর কোর্সটি শুরুর পরই লকডাউন শুরু হয়। ফলে তিন মাসের কোর্স এক মাসে শেষ করতে হয়। ভেবেছিলাম, ঢাকায় ফিরব। কিন্তু করোনার কারণে তা আর হলো না।’ প্রাচীন রোমান সাম্রাজ্যের শাসনকর্তা জুলিয়াস সিজারের একটি উক্তি ইতিহাসখ্যাত, ‘এলাম, দেখলাম, জয় করলাম’। নায়িকা শবনব বুবলীর বেলায় এ উক্তির যথার্থ প্রয়োগ পাওয়া যায়। ঢাকাই সিনেমায় হুট করে অভিষেক হয় এ নায়িকার। এসেই জয় করে নেন। রাতারাতি বনে যান তারকা। তারকা হলেও ঘরকুনো স্বভাবের মেয়ে বুবলী। তাই এক ছবির শুটিং শেষ হলে অন্য ছবির শুটিং শুরুর মাঝের যে সময় থাকে, তা বুবলী নিজের মতো করে ঘরকুনো হয়েই কাটান। এই সময়ে তিনি তার ব্যক্তিগত মুঠোফোন বন্ধ রাখেন। নিজের মতো করে পরিবারকে সময় দেন। তাইতো বুবলীকে নিয়ে উধাওয়ের গল্পও তৈরি হয়। রটে নানা গুঞ্জনও। তবে যারা গুঞ্জনের শুনে সেটা প্রচারের সচেষ্ট থাকেন তাদের উদ্দেশ্য বুবলীর বক্তব্য হচ্ছে, ‘এসব করে তো কোন লাভ হয়না। শুধু শুধু মানসিকভাবে কষ্ট দেওয়া আমরাও তো মানুষ। তাই বলবো, সত্যতা নিশ্চিত হওয়ার পরই বিষয়গুলো নিয়ে কথা বলা উচিত সবার।’

বুবলীর পাঁচ বছরের অভিনয়জীবনে মুক্তিপ্রাপ্ত ছবির সংখ্যা মাত্র ১০টি। প্রতিটি ছবি দিয়েই আলোচিত তিনি। ১০টি ছবির কোনো কোনোটি ব্যবসায়িকভাবে ব্যর্থ হলেও নায়িকা হিসেবে তিনি আলোচিত। এতো অল্প সময়ে এতো সাফল্য ও পরিচিত খুব কম নায়িকাদের বেলাতেই হয়। তার বেলায় হয়েছে। এজন্য দর্শকদের কাছে বরাবারই কৃতজ্ঞতা জ্ঞাপন করে আসছেন বুবলী। বুবলী বলেন, ‘গত ১১ মাস আড়ালে থাকার পর আমি ফিরেছি। এতদিনে আমি বুঝতে শিখেছি। দর্শকদের কিভাবে তুষ্ট করতে হয়। আমাদের দেশের পাশাপাশি পৃথিবীর সব দেশের দর্শকরা, তাদের প্রিয় অভিনয়শিল্পীদের কাছে সবসময় নতুনত্ব আশা করেন। তাইতো নিজেকে নবরূপে নিয়ে আসতেই এতটা সময় নিয়েছি। যাতে দর্শকরা নতুন এক বুবলীর দেখা পান।’

বুবলী এখন বেশ পরিণত। তাই নিজেকে নিদিষ্ট গণ্ডির মধ্যে আবদ্ধ রাখতে চান না। যে কারণে তিনি এখন বিভিন্ন নায়কদের সঙ্গে অভিনয় করছেন। এতোদিন শুধু শাকিবের নায়িকা থাকায় দর্শকদের অনেকেই মুখ ভাড় করেছিলেন। তখনই বুবলী শাকিব ছাড়াই নিববের বিপরীতে অভিনয় করেন ‘ক্যাসিনো’। আর এবারের শুরু করলেন ‘চোখ’। নারায়নগঞ্জের বেশ কয়েকটি স্থানে ছবির দৃশ্যধারণ চলছে। প্রায় বছরখানেক পর শুটিংয়ে ফিরে কেমন লাগছে? জানতে চাইলে, একরাশ হাসি দিয়ে বললেন, ‘দীর্ঘদিন পর যখন পরিবারের কাছে ফিরলে যে আনন্দ হয়। আমারও তেমনই লাগছে।’ গত ৫ বছরের অভিনীয় জীবনে আপনার অভিনীত ছবির সংখ্য কম কেন? বিজ্ঞদের মতো করেই বুবলী, ‘বছরে কয়টি ছবিতে অভিনয় করলাম, ছবির সংখ্যা অন্যদের চেয়ে কম হলো কি-না- এ সব কখনও চিন্তা করি না। জনপ্রিয়তাকে পুঁজি করেও স্রোতের জোয়ারে গা ভাসানোর ইচ্ছা কোনো কালে ছিল না। কিন্তু এ কথা ঠিক যে, অনেক বাছ-বিচার করে অভিনয়ের সুযোগ কম। তারপরও চাইলে নিজেকে নানারূপে, নানা চরিত্রে পর্দায় তুলে ধরা সম্ভব। আত্মবিশ্বাস নিয়ে এ কথা বলার কারণ একটাই, দেশে ভালো মানের ছবি নির্মিত হচ্ছে। যে জন্য অভিনেত্রী হিসেবে প্রতিষ্ঠা পাওয়া, নানা চরিত্রে পর্দায় নিজেকে তুলে ধরার মধ্য দিয়ে দর্শকের ভালোবাসা কুড়ানো সম্ভব। আমিও তাই ছবির সংখ্যার হিসাব-নিকাশ ছেড়ে ভালো কাজের দিকে মনোযোগী।’

এন এইচ, ২৬ ফেব্রুয়ারি

Comments

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

%d bloggers like this: