আফগান ইতিহাসের প্রথম গণতান্ত্রিক নির্বাচন

this is caption

আফগানিস্তানে প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে ভোটগ্রহণ শুরু হয়েছে। তালেবানদের হামলা ও হুমকির মধ্য দিয়েই দেশটির পাঁচ হাজার বছরের ইতিহাসে এই প্রথম গণতান্ত্রিক উপায়ে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হলো।

ইতোমধ্যে নির্বাচন উপলক্ষে সারা দেশে কঠোর নিরাপত্তা ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে। একটি নতুন প্রেসিডেন্ট নির্বাচন করতে আফগানিস্তানের লাখ লাখ ভোটার আজ ভোট দিতে যাবেন।

আন্তর্জাতিক সংবাদ মাধ্যমগুলো জানিয়েছে, নির্বাচনে মোট ভোটার এক কোটি ২০ লাখ। ভোটকেন্দ্রের সংখ্যা ২৮ হাজার ৫০০টি। তবে মোট কেন্দ্রের মধ্যেদশ শতাংশ কেন্দ্রকে অতি ঝুঁকিপূর্ণ হিসেবে চিহ্নিত করা হয়েছে। কিন্তু প্রায় আশি শতাংশ ভোটারই আতঙ্কের মধ্যেই ভোট দিতে যাবেন বলে ধারণা করা হচ্ছে।

এ নির্বাচনে প্রেসিডেন্ট পদে আটজন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। তবে মূল লড়াই হবে আবদুল্লাহ আবদুল্লাহ, আশরাফ গনি ও জালমাই রসুল এ তিনজনের মধ্যে।

আফগানিস্তানের বর্তমান প্রেসিডেন্ট হামিদ কারজাই সাংবিধানিক বাধ্যবাধকতার কারণে তৃতীয় দফায় আর প্রেসিডেন্ট হতে পারছেন না। ২০০১ সালে তালেবানের পতনের পর থেকে ক্ষমতায় আছেন হামিদ কারজাই। শুক্রবার সর্বশেষ তিনি জাতির উদ্দেশে ভাষণ দিয়েছেন।

এদিকে নির্বাচনের নিরাপত্তার দায়িত্বে লাখ লাখ পুলিশ ও সেনা মোতায়েন করা হয়েছে। এরইমধ্যে নির্বাচন বানচালের হুমকি দিয়েছে তালেবানরা।

নির্বাচনের মাত্র একদিন আগে শুক্রবার পুলিশের গুলিতে খ্যাতনামা জার্মান ফটোসাংবাদিক আনিয়া নিয়েড্রিংহৌস নিহত হয়েছেন। তার এক সহকর্মী কানাডার নারী সাংবাদিক ক্যাথি গ্যানন আহত হয়েছেন।

তারা দুজনেই অ্যাসোসিয়েটেড প্রেস বা এপি’র সাংবাদিক। আফগানিস্তানের খোস্ত শহরে নির্বাচনী কর্মীদের সাথে গাড়িতে করে যাবার সময় হঠাৎ করে এক পুলিশ কর্মকর্তা তাদের ওপর গুলি চালায়।

বিবিসি জানায়, প্রত্যেকটি ভোট কেন্দ্রে ভোটাররা যেন নিশ্চিন্তে ভোট দিতে পারেন সে কারণে সারাদেশে প্রায় চার লাখের মতো পুলিশ ও সেনা সদস্য নিয়োজিত রয়েছে।

শুক্রবার দুপুর থেকে রাজধানীতে গাড়ি প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা আরোপ করা হয়েছে। সাংবাদিকদের প্রবেশেও কড়াকড়ি ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে।

পশ্চিমা দুনিয়াসহ আঞ্চলিকভাবে এ নির্বাচনকে ব্যাপক গুরুত্ব দেয়া হচ্ছে। ধারণা করা হচ্ছে, এ নির্বাচনে ক্ষমতা হস্তান্তরের মধ্য দিয়ে আফগান-মার্কিন সম্পর্ক নতুনভাবে হাজির হতে পারে।

শাতৈ/অআ

Leave a Reply

Your email address will not be published.

%d bloggers like this: