rankmath বিশ্বে এক নম্বর রাষ্ট্র নয় যুক্তরাষ্ট্র

বিশ্বে এক নম্বর রাষ্ট্র নয় যুক্তরাষ্ট্র

this is caption

বিশ্বে সবচেয়ে ক্ষমতাধর, ধনী এমনকি জ্ঞান বিজ্ঞানেও সবচেয়ে এগিয়ে থাকা সত্ত্বেও এক নম্বর সেরা রাষ্ট্র নয় মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র।

‘নিউইয়র্ক টাইমস’ পত্রিকায় লেখা এক নিবন্ধে মার্কিন সাংবাদিক নিকোলাস ক্রিস্টোফ এমনটি দাবি করেছেন।

‘আমরাএক নম্বর নই’ শিরোনামে ওই সাংবাদিক তার প্রতিবেদনে যুক্তি দিয়ে লিখেছেন, “মাথাপিছু আয়ের দিক থেকে নরওয়ের নাগরিকেরা আমাদের চেয়ে এগিয়ে আছেন। জাপানিদের গড় আয়ু আমাদের চেয়ে বেশি।”

সম্প্রতি ১৩২টি দেশের জীবনমান বিবেচনা করে প্রকাশিত সামাজিক অগ্রগতি সূচকের প্রসঙ্গ টেনে নিকোলাস ক্রিস্টোফ লিখেছেন, “সামাজিক অগ্রগতি সূচকে যুক্তরাষ্ট্রের অবস্থান ১৬তম। আরসবার ওপরে নিউজিল্যান্ড। নিউজিল্যান্ডের পরের অবস্থানে যথাক্রমেসুইজারল্যান্ড, আইসল্যান্ড ও হল্যান্ড। অথচ এই দেশগুলো মাথাপিছু আয়ের দিকদিয়ে যুক্তরাষ্ট্রের চেয়ে পিছিয়ে।”

নিবন্ধেনিকোলাস ক্রিস্টোফ লিখেছেন, আয়ারল্যান্ডের অবস্থান বিশ্বে ১৫তম। ‘সুযোগের’ দিক থেকে এখনো যুক্তরাষ্ট্রের চেয়ে এগিয়ে আয়ারল্যান্ড।

নিবন্ধে বলা হয়, ‘উচ্চতর শিক্ষায় যুক্তরাষ্ট্র সবাইকে ছাড়িয়ে গেছে।কিন্তু সূচকে সুস্বাস্থ্যের দিক থেকে আমরা বিশ্বে ৭০তম, পরিবেশগত ভারসাম্যরক্ষায় ৬৯তম, মৌলিক শিক্ষায় ৩৯তম, বিশুদ্ধ পানি প্রাপ্তি ও পয়ঃনিষ্কাশনব্যবস্থায় ৩৪তম, ব্যক্তিগত নিরাপত্তায় ৩১তম অবস্থানে আছি।

নিকোলাস বলেন, ফ্রান্সেরশতকরা ৯৯ ভাগ মানুষ যুক্তরাষ্ট্রের চেয়ে বেশি নাগরিক সুবিধা পেয়েছে। শতকরা ১ভাগের কথা বাদ দিলে মার্কিন নাগরিকদের চেয়ে ভালোই আছে ফরাসিরা।

নিবন্ধে নিকোলাস আক্ষেপ করে বলেন, “যুক্তরাষ্ট্রের সামরিক শক্তিসম্পর্কে গোটা বিশ্ব অবগত। সবাই জানে, আমরাই এক নম্বর! কিন্তু সমস্যা হলো, আমাদেরঅর্থনৈতিক ও সামরিক শক্তিকে নিজেদের নাগরিকদের কল্যাণে বা জীবনমান উন্নয়নেরজন্য ব্যবহার করতে পারি না।”

শাতৈ

Leave a Reply

Your email address will not be published.

%d bloggers like this: