চীনকে মোকাবেলায় মার্কিন সিনেটে ৬০০ কোটি ডলারের তহবিল অনুমোদন

এশিয়া মহাদেশে চীনকে মোকাবেলার জন্য মার্কিন সিনেটে ৬০০ কোটি ডলারের একটি তহবিলে অনুমোদন দেয়া হয়েছে।বার্ষিক প্রতিরক্ষা নীতি বিলের আওতায় নতুন এই তহবিলের মাধ্যমে মার্কিন সেনাদের আরো শক্তিশালী করার জন্য ব্যয় করা হবে বলে জানা গেছে। বৃহস্পতিবার মার্কিন সিনেটের সশস্ত্র পরিষেবা বিষয়ক একটি কমিটি এই তহবিলে অনুমোদন দেয়।

জানা গেছে, এই ৬০০ কোটি ডলারের মধ্যে ১৪০ কোটি ডলার ২০২১ সালের অর্থ বছরে খরচ হবে এবং বাকি ৫৫০ কোটি ডলার ২০২২ সালের অর্থ বছর নাগাদ খরচ হবে। এই তহবিল কিভাবে খরচ হবে সেই বিষয়ে মার্কিন প্রতিরক্ষামন্ত্রীকে একটি ব্যয় পরিকল্পনা করতে সিনেটের পক্ষ থেকে নির্দেশ দেয়া হয়েছে বলে জানা গেছে। তবে এই তহবিলের বিষয়ে মার্কিন সিনেটের পক্ষ থেকে তেমন বিস্তারিত কিছু বলা হয়নি।

এই তহবিলের বিষয়ে মার্কিন সিনেটের সশস্ত্র পরিষেবার পক্ষ থেকে একটি সারসংক্ষেপে বলা হয়, এশিয়ায় যুক্তরাষ্ট্রের নিরাপত্তা এবং উন্নতিকে ধরে রাখার জন্য সবচেয়ে ভালো উপায় হচ্ছে সেনা শক্তিতে বিশ্বাসযোগ্য ভারসাম্য তৈরি করা। কিন্তু কয়েক বছর ধরে পর্যাপ্ত অর্থ ব্যয় না করায় সেটি ঝুঁকির মধ্যে রয়েছে।

ইন্দো-প্রশান্ত মহাসাগরীয় অঞ্চলে আধিপত্য ও বাণিজ্যসহ বিভিন্ন ইস্যুতে চীন ও যুক্তরাষ্ট্রের মধ্যে দ্বন্দ্ব রয়েছে। এদিকে মৎস্য সম্পদসহ খনিজ আহরণের জন্য গুরুত্বপূর্ণ দক্ষিণ চীন সাগর দিয়ে বছরে প্রায় ৫ লাখ কোটি ডলারের পণ্য পরিবহন হয়ে থাকে। পুরো সমুদ্রপথকে নিজেদের অঞ্চল বলে দাবি করে চীন। তবে আরও কয়েকটি দেশও ওই অঞ্চলের ওপর কর্তৃত্ব দাবি করে থাকে। দেশগুলো হচ্ছে মালয়েশিয়া, ব্রুনাই, ইন্দোনেশিয়া, তাইওয়ান, ফিলিপাইন ও ভিয়েতনাম। যুক্তরাষ্ট্র আনুষ্ঠানিকভাবে ওই অঞ্চলের দাবি না করলেও আন্তর্জাতিক সমুদ্রপথ হিসেবে ওই অঞ্চলে নিজেদের সামরিক উপস্থিতি ধরে রাখতে চায় ।

ইত্তেফাক/এআর

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

%d bloggers like this: