গরিলার করোনা পরীক্ষা করতে গিয়ে নাস্তানাবুদ চিকিৎসকরা

এবার অসুস্থ এক বিশাল আকারের গরিলার করোনা টেস্ট করা হলো। তবে তার টেস্ট করতে গিয়ে রীতিমত ঘাম ছুটেছে চিকিৎসকদের।

যুক্তরাষ্ট্রের ফ্লোরিডা অঙ্গরাজ্যের মিয়ামি শহরে এই গরিলার করোনা পরীক্ষা করা হয়। শানগো নামের ৩১ বছর বয়সী গরিলার ঠিকানা মিয়ামি চিড়িয়াখানায়।

নিউইয়র্ক পোস্টের খবরে বলা হয়, কয়েক দিন আগে মিয়ামি চিড়িয়াখানায় নিজের ভাই বার্নির সঙ্গে তার মারামারি হয়। লড়াইয়ে গুরুতর চোট পায় শানগো। তার হালকা জ্বর আসে।

গত বুধবার তাকে চিকিৎসার জন্য প্রাণিদের হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে তাকে এক্স-রে, আলট্রাসাউন্ড এবং অন্যান্য পরীক্ষা করা হয়।

কিন্তু করোনা টেস্টের সময় রীতিমত ঘাম ছুটেছে চিকিৎসকদের! তবে সৌভাগ্যক্রমে তার করোনা রিপোর্ট নেগেটিভ আসে।

এরই মধ্যেই নিজের আস্তানায় ফিরে গেছে শানগো। দূরত্ব বজায় রাখতে তার ভাই বার্নিকে রাখা হয়েছে অন্য খাঁচায়।

চিড়িয়াখানার কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, শানগোর ওজন ৪৩৩ পাউন্ড। ২০১৭ সালে শানগো ও তার ভাই ২৬ বছর বয়সী বার্নি চিড়িয়াখানায় জন্মগ্রহণ করে।

ইত্তেফাক/জেডএইচ

সূত্রঃ দৈনিক ইত্তেফাক

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

%d bloggers like this: