সম্পর্ক থেকে যা চায় পুরুষরা

নারীরা মনে করেন, পুরুষরা প্রতিশ্রুতি দেওয়ার বিষয়ে ভীত থাকেন। অনেক পুরুষ অবশ্য প্রেমে জড়িয়ে সফল পরিণতি টানার ক্ষেত্রে প্রতিশ্রুতি দিতে চান না। তবে অসংখ্য পুরুষ আছেন যাদের ক্ষেত্রে এমন কথা বলাই যায় না। সম্পর্কে জড়িয়ে পুরুষরা বেশ কয়েকটি কাজ করতে ইচ্ছুক থাকেন। এ সম্পর্কে ধারণা নিন।

১. স্পর্শ ভালোবাসেন : দৈহিক অন্তরঙ্গতা পছন্দ করেন পুরুষরা। এর মানে কেবল যৌনতা নয়। এমনকি যৌন অনুভূতিহীন স্পর্শও তাদের দারুণ পছন্দের। প্রেমিকা বা স্ত্রীকে স্পর্শ করা, পেছন থেকে জড়িয়ে ধরা, চুল ও ঘাড় স্পর্শ করা ইত্যাদি কাজে ব্যাপক আগ্রহ থাকে পুরুষের। এমন স্পর্শের মাধ্যমে আসলে তারা ভালোবাসা প্রকাশ করেন।

২. যৌনতা : এ বিষয়টি উভয়ই উপভোগ করেন। তাই এ বিষয়ে আর বেশি কিছু বলার প্রয়োজন পড়ে না।

৩. আবেগের পূর্ণতা : মনে করা হয়, কেবল নারীদের আবেগই বেশি। সম্পর্কের ক্ষেত্রে পুরুষরাও আবেগগতভাবে যুক্ত হয়। একবার সব বাধা সরে গেলে দেখবেন, প্রত্যেক পুরুষ শিশুর মতো হয়ে উঠেছে। আসলে পুরুষরা তাদের আবেগ দেখাতে চান না। একবার প্রতিশ্রুতিশীল হয়ে উঠলে তাদের চেয়ে আস্থাভাজন আর কেউ হতে পারেন না।

৪. চিরস্থায়ী সম্পর্ক : একবার দুজনের মাঝে সত্যিকার প্রেমের উদয় ঘটলে মনে হবে এ সম্পর্কে চিরস্থায়ী। পুরুষরা ২৪ ঘণ্টাই তার প্রেমিকা বা স্ত্রীর সঙ্গে সময় কাটাতে চান। তারা এর পর থেকে আর একাকী বোধ করেন না।

৫. গোছালো হয়ে ওঠেন : ব্যাচেলর কোনো পুরুষের কক্ষে ঢুকলে কি দৃশ্য দেখা যায়? সম্পর্কে জড়ানোর পর আমূল পরিবর্তন আসে তাদের মাঝে। তারা গোছালো হয়ে ওঠেন। এলোমেলো থাকা আর তাদের পক্ষে সম্ভব হয় না। তারা নিজের সম্পর্কে অনেক সচেতন হয়ে ওঠেন।

৬. কারো খেয়ালে থাকতে চান : বয়স যতই হোক না কেন, প্রত্যেক পুরুষ চান কেউ তার খেয়াল রাখছেন। জীবনের যেকোনো মুহূর্তে তারা এমন কাউকে পাশে দেখতে চান যে কিনা তার খবর নেবে। এমন সঙ্গিনী পেলে কোনো সমস্যাই তাদের কাছে সমস্যা নয়।

৭. সৎ মতামত দেওয়ার কাউকে দেখতে চান : সৎ মানুষকে কে না পছন্দ করেন? সবাই করেন। পুরুষরা এমন সঙ্গিনী চান যে তার সঙ্গে সততার সঙ্গে কোনো আলোচনায় বসবেন। ভালো পরামর্শ দেবেন। পোশাক থেকে শুরু করে জীবনের সব বিষয়ে তারা সঙ্গিনীর কাছ থেকে ভালো পরামর্শ আশা করেন।

এম ইউ

সম্পর্ক থেকে যা চায় পুরুষরা

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

%d bloggers like this: